adimage

২১ অক্টোবর ২০১৮
সকাল ০৮:২৭, রবিবার

সৌদি সাংবাদিক নিখোঁজের ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রের উদ্বেগ

আপডেট  07:12 AM, অক্টোবর ০৯ ২০১৮   Posted in : আন্তর্জাতিক    

সৌদিসাংবাদিকনিখোঁজেরঘটনায়যুক্তরাষ্ট্রেরউদ্বেগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ৯ অক্টোবর : সৌদি আরবের নিখোঁজ সাংবাদিক জামাল খাশোগি নিখোঁজের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। খবর আল জাজিরার।

হোয়াইট হাউজে সাংবাদিকদের প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, আমি খুবই উদ্বিগ্ন।আমি এই ব্যাপারে বেশি কিছু শুনতে চাইনা।আশা করি খুব শিগগিরই তার বিষয়টি প্রকাশ পাবে। এখন পর্যন্ত এই ব্যাপারে কেউই তেমন কিছু জানেনা।তাকে নিয়ে খুব খারাপ গল্প বানানো হচ্ছে। আমি সেটি পছন্দ করিনা।

যুক্তরাষ্ট্রের ভাইস প্রেসিডেন্ট মাইক পেন্সও এমন ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। এই বিষয়ে তিনি বলেন স্বাধীন বিশ্ব তার নিখোঁজ হবার ঘটনার আসল জানতে চায়।

এদিকে জামাল খাশোগি সৌদি দূতাবাসে গিয়ে খুন হয়েছেন এমন ঘটনা সত্য প্রমাণ হলে সৌদি আরবের সঙ্গে মার্কিন সম্পর্ক খারাপ হবে বলে সতর্ক করে দিয়েছেন দুইজন জ্যেষ্ঠ সিনেটর। এই বিষয়ে রিপাবলিকান সিনেটর গ্রাহাম এক টুইত বার্তায় বলেন, রিয়াদের সৎ জবাব দিতে হবে। যদি সত্যি জামাল খাশোগির সাথে সৌদি সরকার খারাপ কিছু করে থাকে তাহলে এটি সৌদি মার্কিন সম্পর্কের জন্য খুব খারাপ হবে এবং এ জন্য তাদের ভুগতে হবে। সেটি অর্থনৈতিক ভাবেও হতে পারে আবার অন্য যে কোন ভাবে হতে পারে আর এ বিষয়ে আমরা সবাই সম্মতি পোষণ করেছি। শত্রু কিংবা মিত্র দেশগুলোর সাথে বৈদেশিকনীতির ভিত্তি আমাদের দেশের মূল্যবোধ।
আরেক সিনেটর বব কর্ক তার টুইট বার্তায় লেখেন, আমি সৌদি রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে জামালের নিখোঁজের বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছি এবং আমরা আরো কিছু তথ্যের জন্য অপেক্ষা করছি । বিদেশি অবস্থানরত সাংবাদিকদের যারা লক্ষ্য বানাবে আমরা তাদের প্রতি ব্যবস্থা নিব।

প্রসংগত, জামাল খাশোগি একজন সৌদি সরাকার সমালোচক এবং সাংবাদিক। যিনি সম্প্রতি বছরগুলোতে সৌদি যুবরাজ মোহাম্মাদ বিন সালমানের কর্মকাণ্ডের ব্যপক সমালোচনা করেছেন। একটি তুর্কি নারীকে বিয়ে করার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র উঠাতে তিনি অক্টোবরের ২ তারিখে তুরস্কের সৌদি দুতাবাসে যান। তবে এরপর তিনি আর ফেরেননি। এদিকে তুরস্ক দাবি করেছে তাকে ওই দূতাবাসের ভেতর হত্যা করা হয়েছে।

সর্বাধিক পঠিত

Comments

এই পেইজের আরও খবর

মোবাইল অ্যাপ ডাউনলোড করুন

nazrul